No icon

দৈনিক সবার সিলেট - অনলাইন

শপথ নিয়েই সংসদকে অবৈধ বললেন রুমিন ফারহানা

একাদশ সংসদের সংরক্ষিত মহিলা আসন থেকে নির্বাচিত বিএনপির সংসদ সদস্য ব্যরিস্টার রুমিন ফারহানা শপথ নিয়েছেন। শপথ নেওয়ার পর পরই তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় তিনি সাংবাদিকদের কাছে বর্তমান সংসদকে অবৈধ আখ্যায়িত করেন।

বলেন, আমি খুব খুশি হব যদি আমার সংসদ সদস্য হবার মেয়াদ একদিনের বেশি না হয়।

রোববার দুপুর ১২টায় স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী তার সংসদ কার্যালয়ে রুমিন ফারহানাকে শপথ বাক্য পাঠ করান। শপথ নেওয়ার পর শপথ বইয়ে স্বাক্ষর করেন। এরপর সংসদ ভবনের তৃতীয় তলায় সিনিয়র সচিবের অফিস কক্ষের সামনে সাংবাদিকদের কাছে প্রতিক্রিয়ায় রুমিন ফারহানা বলেন, ‘নিশ্চয়ই প্রথমবার সংসদ সদস্য হয়ে সংসদে আসা আমার জন্য আনন্দের। তবে আমি এমন একটি সংসদে যোগ দিতে যাচ্ছি যেটি জনগণের ভোটে নির্বাচিত না। সংসদ গঠিত হওয়ার পর থেকেই বলেছি, এটি অবৈধ সংসদ, এখনো দ্ব্যর্থহীন ভাষায় বলছি, এটি অবৈধ সংসদ। আমি খুব খুশি হব যদি আমার সংসদ সদস্য হবার মেয়াদ একদিনের বেশি না হয়। আমি চাই দ্রুত একটি অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের মধ্য দিয়ে জনপ্রতিনিধিত্বশীল সরকার গঠিত হোক।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমরা সংখ্যাগত দিক থেকে নিশ্চয়ই অনেক কম। তারপরও আশা করছি, সংসদে যদি একজনও ন্যায্য কথা বলেন, তাকে যথেষ্ট সময় ও সুযোগ দেওয়া হবে। সরকারের স্বার্থেই এ সময় ও সুযোগ দেওয়া উচিত।

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, খালেদা জিয়া তিনবারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী। তার মামলার মেরিট, তার বয়স, সামাজিক অবস্থান বিবেচনায় তিনি বাংলাদেশের আইন অনুযায়ী তাৎক্ষণিক জামিন লাভের যোগ্য। তাকে জামিন বঞ্চিত করে কারাগারে রাখা হয়েছে। যার পুরোটাই বেআইনি। তিনি রাজনৈতিক প্রতিহিংসার শিকার। নিশ্চয়ই সে বিষয়গুলো নিয়ে সংসদে কথা বলব।

রুমিন ফারহানাকে সংরক্ষিত মহিলা আসন-৩৫০ এ বিএনপির পক্ষ থেকে মনোনয়ন দেয়া হয়। এ আসনটি বিএনপির কোটায় খালি ছিল। তার শপথ অনুষ্ঠানে জাতীয় সংসদের চীফ হুইপ নূর-ই-আলম চৌধুরী, হুইপ ইকবালুর রহিম, হুইপ আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন ও ক্যাপ্টেন (অব:) এ বি তাজুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন। জাতীয় সংসদ সচিবালয়ের সিনিয়র সচিব ড. জাফর আহমেদ খান শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন।

Comment As:

Comment (0)